শনিবার (সকাল ৭:৫১), ৫ই কার্তিক, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
এইচ.এস.সিভর্তি তথ্য

কলেজ ভর্তির গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নোত্তর, কলেজ পছন্দ না হলে করণীয়

২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে একাদশ শ্রেণীতে আজ ভর্তির ১ম মেধা তালিকার ফলাফল প্রকাশ হয়েছে। এরপর আরও ২টি ধাপে ফলাফল প্রকাশ করা হবে। শিক্ষার্থীরা কলেজে ভর্তির ব্যপারে নানা প্রশ্ন করছেন, তাই তাদের জন্য কলেজ ভর্তির গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নোত্তর, কলেজ পছন্দ না হলে করণীয় ইত্যাদি কিছু পরামর্শ দেওয়া হল। আশা করি তা তাদের অনেক কাজে লাগবে।

১. আমাকে যে কলেজ দেওয়া হয়েছে উক্ত কলেজ পছন্দ না এখন কি করবো?

আপনার কলেজ পছন্দ না হলেও প্রথমে উক্ত কলেজেই ভর্তি হতে হবে। এরপর আপনি মাইগ্রেশনের জন্য আবেদন করলে আসন খালি থাকা সাপেক্ষে নতুন পছন্দ করা কলেজে ভর্তি হতে পারবেন।

২. আমাকে যে কলেজ দেওয়া হয়েছে সেটা পছন্দ না, তাই মাইগ্রেশন করতে চাচ্ছি, মাইগ্রেশন করতে হলে কি আমাকে ১৮৫ টাকা পাঠাতে হবে নাকি মাইগ্রেশনের জন্য আবেদন করতে হবে?

আপনি মাইগ্রেশন করতে চাইলেও প্রথমে আপনাকে শিক্ষাবোর্ড থেকে দেওয়া কলেজে ভর্তি হতে হবে, অর্থাৎ ১৮৫ টাকা দিয়ে রেজিস্ট্রেশন সেটা সম্পন্ন করে প্রথমে শিক্ষাবোর্ডের দেওয়া কলেজে ভর্তি হতে হবে। এরপর মাইগ্রেশনের আবেদন করতে হবে।

৩. মাইগ্রেশন কিভাবে করব?

মাইগ্রেশন এখন করতে পারবেন না, আগামীকাল থেকে মাইগ্রেশন শুরু হবে, কিন্তু মাইগ্রেশনেরে আগে সবাইকে অবশ্যই শিক্ষাবোর্ডের দেওয়া কলেজে ভর্তির জন্য আবেদন করতে হবে।

৪. মাইগ্রেশন করার পর যদি নতুন কলেজ না আসে, তাহলে কি আগের কলেজে ভর্তি হতে পারবো?

আপনি তো আগের কলেজে অলরেডি ভর্তি থাকবেন। মাইগ্রেশনে আবেদনকৃত কলেজে যদি চান্স না হয়, তাহলে আপনার আগের কলেজ বহাল থাকবে। কিন্তু যদি নতুন কলেজে চান্স হয়, তাহলে আগের কলেজে ভর্তি বাতিল হবে এবং উক্ত কলেজে পুনরায় আসার সুযোগ থাকবে না।

৫. মাইগ্রেশনের আগে কি আমাকে শিক্ষাবোর্ডের দেওয়া কলেজে ভর্তি হতে হবে?

হ্যাঁ, অবশ্যই আপনাকে আগে উক্ত কলেজে ভর্তি হতে হবে। এরপর যখন মাইগ্রেশন শুরু হবে তখন মাইগ্রেশন করে পছন্দের কলেজে যেতে পারবেন।

৬. মাইগ্রেশনে আমি কি আগের কলেজগুলো দিতে পারবো নাকি নতুন কলেজ দিতে হবে? মাইগ্রেশনে কয়টা কলেজ দেওয়া যাবে?

আগের কলেজগুলোতে যেহেতু আসে নি, তাই মাইগ্রেশনে নতুন কলেজ দেওয়ায় ভাল হবে। তবে ২/১ টা আগের কলেজ দিতে পারেন, কারণ শিক্ষার্থীরা যারা ঐই কলেজ থেকে মাইগ্রেট করবেন, তাদের আসন খালি থাকবে। এখন পর্যন্ত জানা যায় যে মাইগ্রেশনে ১০টি কলেজ সিলেকশন দেওয়া যাবে। তবে যদি কম বেশি হয়, সেটা পরবর্তীতে জানানো হবে।

৭. কলেজে ভর্তি নিশ্চয়ন করবো কিভাবে?

শিক্ষাবোর্ডের দেওয়া কলেজে আবেদনের জন্য রেজিস্ট্রেশন ফি দিলেই উক্ত কলেজে এডমিশন নিশ্চিত হবে।

৮.আমাকে কি কলেজে গিয়ে ভর্তি ফরম তুলতে হবে?

না, তবে অনলাইন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হওয়ার পর কলেজে নির্ধারিত ভর্তি ফি কলেজে জমা দিয়ে এবং প্রয়োজনীয কাগজপত্র ও সিকুরিটি কোডসহ কলেজে ভর্তি হতে হবে।

৯. আমার তো সিকিউরিটি কোড আসে নি, কি করবো?

আপনার মোবাইল নম্বর ঠিক থাকলে সিকিউরিটি কোড যাওয়ার কথা, চেক করে দেখুন, কেউ ডিলিট করেছে কিনা, অথবা মোবাইলে মেসেজ ফুল দেখাচ্ছে কিনা। সব ঠিক থাকার পরও যদি সিকিউরিটি কোড না পান, তবে অনলাইনে চেক করুন আপনার মোবাইল নম্বর ঠিক আছে কিনা।মোবাইল নম্বর এর শুরুতে (+, ৮৮, বা -) (যেমন: +8801948457251, 8801918878215,) এই জাতীয় চিহ্ণ ব্যবহার করবেন না। নরমালি 01948158488 এইভাবে দিবেন। মোবাইল নম্বর অবশ্যই খোলা রাখবেন এবং বাইওমেট্রিক রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন হতে হবে। মোবাইল নম্বর এর জায়গায় টেলিফোন বা অন্য কোন নাম্বার দিবেন না।

সব ঠিক থাকার পরও যদি সিকিউরিটি কোড না পান তবে দেখে নিন, কিভাবে মোবাইল নম্বর পরিবর্তন করবেন, মোবাইল নং পরিবর্তন করলে নতুন নাম্বারে সিকিউরিটি কোড যাবে।

আরেকটি উপায় হল আপনি যদি প্রথম পর্যায়ে কলেজে এপ্লাই/রেজিস্ট্রেশন ফি না পাঠান, তবে আপনার ভর্তি বাতিল হবে, আপনি নতুন ভাবে ভর্তির আবেদন করতে পারবেন।

১০. আমার তো ১ম মেরিট লিস্টে আসে নি, আমি কি ২য় মেরিট লিস্টের জন্য অপেক্ষা করবো?

হ্যাঁ, আপনাকে দ্বিতীয় মেরিট লিস্টের জন্য অপেক্ষা করতে হবে।

১১. আমার তো ১ম মেরিট লিস্টে আসে নি, আমি কি আবার টাকা দিয়ে ভর্তির জন্য আবেদন করতে করবো?

না, আপনি তো একবার আবেদন করেছেন, তাই নতুনভাবে আবেদন করার সুযোগ নেই, আপনাকে দ্বিতীয় পর্যায়ের ফলাফলের জন্য অপেক্ষা করতে হবে।

১২. রেজিস্ট্রেশনে ১৮৫ টাকা দেওয়ার পর কি আবার ভর্তির সময় টাকা দিতে হবে?

হ্যাঁ, সরকার প্রতিটি কলেজের জন্য নির্ধারিত ভর্তি ফি কলেজে জমা দিয়ে এবং প্রয়োজনীয কাগজপত্র ও সিকুরিটি কোডসহ কলেজে ভর্তি হতে হবে।

১৩. যাদের কোন কলেজে নাম আসে নি, ২য় পর্যায় কি ১ম বার আবেদন করা কলেজ থেকে আসার সম্ভাবনা আছে? নাকি সব পরিবর্তন করতে হবে? আর ১ম বার না আসা কলেজগুলোতে ২য়বার কিভাবে আসে? ওরা কি ২য়বারের জন্য কোন আসন সংখ্যা খালি রাখে?

অনেকেই এখন মাইগ্রেশন করবেন, সুতরাং আপনি যে ১০টি কলেজে আবেদন করেছেন সেখানে সিট হতে পারে, তখন যোগ্যতা অনুযায়ী উক্ত কলেজগুলোতে আপনাকে ভর্তি হওয়ার সুযোগ দিতে পারে। তবে এই রিস্কে না থাকা ভাল, আগের সিলেকশনের চেয়ে কিছুটা কম মানের আরো কয়েকটি কলেজ সংযোগ/বিয়োজন করুন।

১৪. কোন কলেজে নাম আসে নি। ধরুন, ২য় মেরিট লিস্টে ও আসেনি। যদি ওয়েটিং লিস্ট থেকেও না আসে তাহলে কি ১ বছর লস দিতে হবে? নাকি আবার অন্য কলেজে আবেদন করতে পারবে?

তৃতীয় মেরিট লিস্টে সবার আসার কথা, কারণ আপনি পরীক্ষায় পাশ করেছেন, তাই ইন্টারমেডিয়েট এ ভর্তি আপনার অধিকার, সরকার সে ব্যবস্থা করতে বাধ্য।

টপিক

আরো পড়ুন

One Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close
Close